Awesome Image

খাবেন যত দেশি ফল, পাবেন ততো পুষ্টি বল আমরা সুস্বাস্থ্যের জন্য সাধারণত স্বাস্থ্য টিপস মেনে চলি - কলিকাতা হারবাল

December 15, 2019

ঋতু বৈচিত্র্যের বাংলাদেশে সারা বছর জুড়ে থাকে হরেক রকম ফলের সমাহার। বৈশাখ জ্যৈষ্ঠকে মধু মাস বলা হলেও সারা বছর পাওয়া যায় রসাল নানান ফল। এক এক ঋতূতে এক এক রকম রঙের এক এক স্বাদের ফল। বাংলাদেশের দেশীয় ফলের মধ্যে পরিচিত ফলগুলো হলো আম,  আমলকি,আঙ্গুর,আনারস,এলাচি,লেবু,কদবেল,কলা,কমলা,করমচা,কাউফল,কাগজি.লেবু,কাজুবাদাম,কামরাঙা,কাঁঠাল,কাঠবাদাম,কালোজাম ,কুল,কেওড়া ফল,কেয়া ফল, খেজুর, খুদিজাম, গাব,গোলাপজাম,চালতা, জলপাই,জামরুল, জাম, টক আতা,ডালিম, ডুমুর,তরমুজ, তাল,তেঁতুল,আমড়া, নারিকেল, পদ্ম ফুল,পানিফল,পেয়ারা, পেঁপে,বাতাবী লেবু,বাঙ্গি, বেল,বেতফল, মহুয়া,লটকন, লিচু, শসা,শরবতী লেবু, সফেদা,সুপারি,সিঙ্গারা ফল, হরিতকী আতা। দেশীয় ও মৌসুমী ফল খাওয়ার সবচেয়ে ভাল দিক হল মৌসুমী ফল টাটকা থাকে। এটা দীর্ঘদিন ফ্রিজ বা কেমিক্যাল দিয়ে সংরক্ষণ করার দরকার হয় না। অপর দিকে মৌসুমের সাথে সাথে ফলের পরিবর্তন আসায় নানা রকম ফল খেতে পারি।

আরও পড়ুন- 

পত্যেকটা মানুষের প্রতিদিন অন্তত একটা করে মৌসুমী ফল খাওয়া উচিৎ। এটা আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে এবং শরীরে শক্তি যোগায়। তবে ফল কেনার সময় এবং খাওয়ার সময় কিছু সাবধানতা অবলম্বন করা জরুরি। পচা নষ্ট ফল কেনা থেকে বিরত থাকতে হবে। যদি ফলের কোনো অংশ পশু পাখি খেয়ে থাকে তবে সেই ফল পরিহার করতে হবে। বাজারে কেমিক্যাল ভর্তি ফলের মধ্যে থেকে টাটকা আর ভাল ফল বেছে কিনতে হবে। ফলে যদি মাছি বা পিঁপড়া বসে তবে ভাবতে হবে এই ফলে ক্ষতিকারক কেমিক্যাল দেওয়া নাই। আবার তাজা ফল একদম না ধুয়ে খাওয়া ঠিক নয়। কারণে ফল খাওয়ার পূর্বে কাঁচা ফল কমপক্ষে ১৫-২০ পানিতে ডুবিয়ে রাখতে পারেন। তার পর এই ফল খেলে কেমিক্যালের ক্ষতিকর দিকগুলো অনেকাংশেই কমে যায়। ফল রান্না করে খেলে অনেক উপাদান নষ্ট হয়ে যায়। তাই খাঁচা পাকা ফল রান্না না করে খেতে পারলে অনেক বেশি পুষ্টি পাওয়া সম্ভব। ফলে প্রচুর পরিমাণে আয়রন, ক্যালসিয়াম, ফলিত এসিড, গ্লুকোজ, জিংক, ম্যাগনেসিয়াম, পটাসিয়াম, ফসফরাস, ম্যাঙ্গানিজ, ভিটামিন রয়েছে। ফলের জ্বলীয় অংশ কোষ্ঠকাঠিন্য থেকে মুক্তি দেয় এবং শরীরের পানিশূন্যতা দূর করে। ফলে সুস্থ্য থাকতে আমাদের প্রতিদিন ফল খাওয়া জরুরী। কলিকাতা হারবাল হাকিম ডা:মো: মাহাবুবুর রহমান!(রেজিষ্টার্ড হারবাল স্পেশালিস্ট যৌন.চর্ম.সাস্থ্যহীনতা মেদভুড়ি. হাঁপানি,বাত বেথা. হেপাটাইটিস (বি -ভাইরাস). অশ্ব গেজ. ও মহিলা রোগে (17 বৎসরের অভিঙ্গতা) বি:দ্র: আপনার কষ্টার্জিত অর্থ বিনষ্ট। না হওয়ার আগেই সঠিক সিদ্ধান্ত নিবেন। ভালভাবে ডা: চেম্বার,ডা:এর শিক্ষাগত যোগ্যতা যাচাই বাচাই করে চিকিৎসা নিবেন। ফেইসবুকে বা অসত্য প্রচারনা থেকে এড়িয়ে চলুন।, কলিকাতা হারবাল মোঃ পুর বাস স্টান্ড আল্লাহ করিম মসজিদ মার্কেট দ্বিতীয় তলা মোঃ পুর ঢাকা , 01971198888 /ইমু নাম্বার 01741331199 

আরও পড়ুন- 

আপনার সাস্থ সেবা নিশ্চিত করতে  সরাসরি ডাক্তারের সাথে কথা বলুন। কলিকাতা হারবাল কেয়ার  একটি আধুনিক আয়ুর্বেদ চিকিৎসা কেন্দ্র।

tag: 

 কলিকাতা হারবাল  কলিকাতা হারবাল কেয়ার   কলিকাতা হারবাল ডাক্তার  kolikata herbal care kolikata herbal kolikata herbal dhaka kolikata herbal doctor kolikata herbal medicine original kolikata herbal kolikata herbal treatment kolikata herbal mohammadpur popular kolikata harbal  কলিকাতা হারবাল ঔষধ